ঢাকা, সোমবার, ২৪ জানুয়ারী ২০২২

সীমান্তে রিভলভার ও ইয়াবা জব্দ, ভারতীয় নাগরিকসহ ১০ চোরাকারবারী আটক, গুলিবিনিময়

প্রকাশ: ২০২২-০১-১১ ১৮:৫৫:৪৮ || আপডেট: ২০২২-০১-১১ ১৮:৫৫:৪৮

 

আটোয়ারী (পঞ্চগড়) সংবাদদাতাঃ পঞ্চগড়ের আটোয়ারী সীমান্ত বালিয়াডাঙ্গী থানা পুলিশের সাথে সংঘবদ্ধ চোরাকারবারী চক্রের সাথে গুলি বিনিময়ের খবর পাওয়া গেছে।

অভিযানে পুলিশ একটি মাইক্রোবাস ও একজন ভারতীয় নাগরিকসহ ১০ চোরাকারবারীকে আটক করে। এসময় তাদের কাছ থেকে একটি রিভলবার ও ৩২ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে। এব্যাপারে আটায়ারী থানায় পৃথক পৃথক ৩টি মামলা রুজু করা হয়।

উল্লেখ্য, ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী থানা এলাকা হতে একটি মাইক্রোবাস ও একটি পাগলু গাড়ীতে অস্ত্র-গুলি ও মাদকদ্রব্য বহন করে পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলা অভিমুখে রওয়ানা হওয়ার গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রানীশংকৈল সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মোঃ তোফাজ্জল হোসেনের নেতৃত্বে বালিয়াডাঙ্গী থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ হাবিবুল হক প্রধান, এসআই মোঃ আব্দুস সোবহান, খাদেমুল করিম ও মাসুদ মিয়া সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে সোমবার রাত প্রায় ৯ টায় এক ধাওয়া অভিযান পরিচালনা করেন।

একপর্যায়ে অস্ত্র-গুলি ও মাদকদ্রব্য বহনকারী চোরাকারবারীর মাইক্রোবাসটি আটোয়ারী উপজেলার লক্ষীথান নামক সীমান্ত এলাকায় পৌঁছলে পিছনে পুলিশকে লক্ষ্য করে চোরাকারবারীরা গুলি বর্ষণ করতে থাকে।

এসময় পুলিশ আত্মরক্ষার্থে ৬ রাউন্ড ফাঁকা রাবার বুলেট ফায়ার করে ঢাকা মেট্রা-গ- ১৪-৪০০৩ নম্বরের ছাই কালারের একটি মাইক্রোবাস সহ তাদের আটক করে এবং তাদের কাছ থেকে তাজা ২টি গুলি সহ একটি রিভলবার (ওয়ান শ্যুর্টারগান) ও ৩২ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করেন। আটককৃতরা হলেন- (১) ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার আমজানখোর ইউনিয়নের হরিণমারী (উদয়পুর) গ্রামের মোঃ খোরশেদ আলম এর পুত্র মোঃ দেলোয়ার হোসেন (২৮), (২) ভারতীয় নাগরিক মোঃ গফুর আলম (২৫) পিতা মোঃ জালাল, গ্রাম- নাদাই, কমলাগাছ সুজালি পঞ্চায়েত, ইসলামপুর উত্তর দিনাজপুর, (৩) ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার আমজানখোর ইউনিয়নের হরিণমারী (ছোট নয়াপাড়া) গ্রামের মোঃ সলেমান আলীর পুত্র মোঃ আব্দুর রাজ্জাক (২৩), (৪) ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার আমজানখোর ইউনিয়নের গোয়ালতলী (পালপাড়া) গ্রামের শ্রী দিপন পাল এর পুত্র শ্রী বিকাশ পাল (৩৫), (৫) ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার আমজানখোর ইউনিয়নের যুগীহার গ্রামের মোঃ রফিকুল ইসলাম এর পুত্র মোঃ জাকির হোসেন (২৫), (৬) ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার আমজানখোর ইউনিয়নের যুগীহার গ্রামের মোঃ কাশেম আলীর পুত্র মোঃ হজরত আলী (২৭), (৭) ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার আমজানখোর ইউনিয়নের কালিবাড়ী গ্রামের মৃত শুকুরদ্দি’র পুত্র মোঃ মনিরুল ইসলাম (৩২), (৮) ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার বড়বাড়ি ইউনিয়নের করিয়াতি গ্রামের মোঃ শামসুর রহমানের পুত্র মোঃ নাসিরুল ইসলাম (২৪), (৯) ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার বড়বাড়ি ইউনিয়নের কোটপাড়া গ্রামের শ্রী কারবারু পাল এর পুত্র শ্রী বিষু পাল (২৯), (১০) ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার বড়বাড়ি ইউনিয়নের করিয়াতি গ্রামের মৃত ধোন মোহাম্মদ এর পুত্র মোঃ পশিরুল ইসলাম (২৮)।

এদিকে বালিয়াডাঙ্গী পুলিশ তাদের আটক করে আটোয়ারী থানায় সোপর্দ করেন এবং এসআই মোঃ আব্দুস সাবহান বাদী হয়ে পৃথক পৃথক ৩টি মামলা দায়ের করেন।

আটোয়ারী থানার ওসি (তদন্ত) দুলাল উদ্দীন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন- মঙ্গলবার অপরাহ্ন আটককৃতদের নাম আটোয়ারী থানায় অবৈধ দেশীয় তৈরী অস্ত্র ও গুলি নিজ হেফাজতে রাখার অপরাধে ১৮৭৮ সালের অস্ত্র আইনের ১৯-ক ধারায়, ইয়াবা ট্যাবলেট হেফাজতে রাখা ও বহন করার অপরাধে ২০১৮ সালের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ৩৬(১) সারণির ৯(ক) ধারার অপরাধ এবং ভারতীয় নাগরিক পাসপার্ট ও ভিসা ব্যতিত বাংলাদেশে প্রবেশ করার অপরাধে ১৯৫২ সালের বাংলাদেশ (কন্ট্রোল অব এন্ট্রি) এ্যাক্ট আইনের ৪ ধারায় পৃথক মামলা রুজু করে আটককৃতদের জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়।