ঢাকা, রোববার, ২৯ মে ২০২২

উখিয়ায় হতদরিদ্রদের জীবিকায়ন বিষয়ক ইউনাইটেড পারপাস’র সমন্বয় সভা

প্রকাশ: ২০২০-১২-২২ ২০:১৯:১৫ || আপডেট: ২০২০-১২-২৬ ১৮:৫৯:৫৬

 

সংবাদদাতা : উখিয়ায় আইওএম এর অর্থায়নে সাংবাদিক ও জনপ্রতিনিধিদের সাথে সমন্বয় সভা করেছে ইউনাইটেড পারপাস।

সোমবার (২২ ডিসেম্বর ২০২০) সকাল ১১ টায় উখিয়া প্রেসক্লাবের কনফারেন্স রুমে এ সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এসময় ইউনাইটেড পারপাসের মার্কেট ডেভলাপমেন্ট এণ্ড লিংকেজ প্রজেক্ট অফিসার, এহসান নেওয়াজ এর সঞ্চালনায়, সভাপতিত্ব করেন লাইভলিহোড স্পেশালিষ্ট উজ্জ্বল কুমার কর্মকার এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উখিয়া প্রেসক্লাবের সভাপতি সাঈদ মুহাম্মদ আনোয়ার।

সসন্বয় সভায় উপস্থাপন করেন লাইভলিহোড স্পেশালিষ্ট উজ্জ্বল কুমার কর্মকার, আইওএম-এর সহযোগিতা Improving resilience Through cooperative livelihood actions (ICRA) প্রকল্প বাস্তবায়নের মাধ্যমে ইউনাইটেড পারপাস উখিয়া উপজেলার রাজাপালং জালিয়াপালং ও পালংখালী ইউনিয়নের ৮ ওয়ার্ডে ৮০ টি স্বনির্ভর দল গঠন করে ১৮৫১ পরিবারের জীবন জীবিকা এবং টেকসই উপার্জন উন্নয়নের লক্ষে এ বছরের জানুয়ারি মাস হতে কাজ করে আসছে। এর লক্ষ্য হচ্ছে অত্র এলাকায় বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গা সমাগমের ফলে ক্ষতিগ্রস্ত হোষ্ট কমিউনিটির সহনশীলতা ও টেকসই জীবিকা উন্নয়ন।

সেফপ্লাস প্রকল্পের ১১৬ জন পুরুষ এবং ৮২৪ জন নারীকে ব্যবসায় উদ্যোগ গ্রহণ এবং ব্যবসা পরিকল্পনা উন্নয়ন বিষয়ক প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়েছে।

৩৪ জন যুবক এবং ৪৩৯ জন নারীকে ব্যবসা উন্নয়নে প্রত্যেকের ব্যাংক হিসাবে ৩৫ হাজার করে নগদ অর্থ প্রদান করা হয়েছে। প্রদানকৃত অর্থ দিয়ে ৬জন অটো রিক্সা, ৮ জন ফার্ণিচার, ৬ জন কম্পিউটার সার্ভিসিং, ৪৪ গরু পালন, ১ জন ফেরির ব্যবসা, ১ জন মৎস চাষ, ৪ জন ফুড প্রসেসিং, ৯১ জন ছাগল পালন, ৪ জন মুদি দোকান, ১৭ জন হস্তশিল্প, ৩ জন মোবাইল সার্ভিসিং, ৮০ জন পোল্ট্রি পালন, ৭ জন ক্ষুদ্র ব্যবসা, ৮৩ জন সেলাই ওও পোষাক তৈরি এবং ১১৮ জন জন সবজি চাষ ব্যবসার উদ্যোগ গ্রহণ করেছে।

সাংবাদিক ও স্থানীয় সরকার প্রতিনিধি সমন্বয় সভায় অতিথির বক্তব্যে বলেন, ইউনাইটেড পারপাস উখিয়ায় যে কাজ করতেছে তাতে উপকারভোগীরা সন্তুষ্ট। তাঁরা চাই এমন কাজ যাতে চলমান থেকে হতদরিদ্র পরিবারের জন্য উপকার করতে পারে সে জন্য অনুরোধ করেন।

সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন উখিয়া প্রেসক্লাবের সহ সভাপতি হুমায়ুন কবির জুশান ও সাধারণ সম্পাদক কমরুদ্দিন মুকুল এবং সাহিত্য সংস্কৃতির ও প্রকাশনা সম্পাদক কাজী হুমায়ুন কবির বাচ্চু, সাবেক কর্মকর্তা আহসান সুমন, উখিয়া অনলাইন প্রেসক্লাবের সভাপতি শফিক আজাদ, সাধারণ সম্পাদক পলাশ বড়ুয়াসহ রাজাপালং, জালিয়াপালং ও পালংখালী ইউনিয়নের ইউপি সদস্যরা এবং শেল্ফ হেল্প গ্রুভ লিডার, মনিটরিং কমিটি লিডার, ইয়ুথ লিডার এবং কমিউনিটি ওয়েলফেয়ার সেন্টারের জমিদাতা এবং শিক্ষক এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও সংবাদকর্মীবৃন্দ৷

উল্লেখ্য, আইওএম এর অর্থায়নে উখিয়া এবং টেকনাফে মোট ৩৭০০ হতদরিদ্র পরিবারের জীবিকায়নের জন্য কাজ করে যাচ্ছে ইউনাইটেড পারপাস।