ঢাকা, সোমবার, ১৫ আগস্ট ২০২২

উখিয়ায় মাহবুব হত্যার আসামী বেলাল বাহিনীর সেকেন্ড-ইন কমান্ড কাজল আটক

প্রকাশ: ২০২০-০৯-২৩ ২২:৩৩:০৭ || আপডেট: ২০২০-০৯-২৩ ২২:৩৬:২১

 

গফুর মিয়া চৌধুরী:
কক্সবাজারের উখিয়ার বহুল আলোচিত চাঞ্চল্যকর মাহবুব হত্যা মামলার অন্যতম আসামী ও এলাকার ত্রাসখ্যাত ইমাম হোছন কাজলকে (৩০) পুলিশ অবশেষে গ্রেফতার হয়েছে।

২৩ সেপ্টেম্বর সকাল ১১টায় পশ্চিম দরগাহবিল গ্রামের মৃত হাজী পেটান আলীর বাড়ি ঘেরাও করে উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মর্জিনা আক্তারের নেতৃত্বে থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) নিজাম একদল পুলিশ তাকে আটক করতে সক্ষম হয়। ধৃত ব্যক্তি উখিয়ার রাজাপালং ইউনিয়নের পশ্চিম দরগাহবিল গ্রামের চিহ্নিত অপরাধী নজির আহমদের পুত্র।

গত ২০১৯ সালের ৩০ নভেম্বর রাত ১১টার দিকে দরগাহবিল গ্রামের প্রবাসী গুরা মিয়ার একমাত্র ছেলে নিরহ টমটম চালক মাহবুব আলমকে (৩০) অপরণ পুর্বক বেধড়ক মারধর করে গলা টিপে শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যা করে।

এ ঘটনা নিহতের মাতা রাজিয়া বেগম বাদী হয়ে সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে উখিয়া থানায় হত্যা মামলা দায়ের করে। উখিয়া থানার মামলা নম্বর ০১ তারিখ- ০১/১২/২০১৯, ধারা :৩০২/২০৪। জি,আর ৫৮৮/২০১৯। ইতোপূর্বে মামলার আরেক আসামী সাইফুল ইসলামকে গ্রেফতার করে কোর্টে হাজির করলে আদালত তাকে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে।

এলাকাবাসীরা জানান, মাহবুব হত্যার আসামীরা ঘটনার পর পর কয়েক মাস পলাতক থেকে সম্প্রতি এলাকায় ফিরে এসে আবার নানান অপরাধ সংঘটিত করে চলেছে। প্রতিদিন, চুরি, ডাকাতি, ইয়াবা ছিনতাইসহ সন্ত্রাস করে বেড়াচ্ছে। সন্ত্রাসী বাহিনীর মুল গডফাদার বেলাল বাহিনীর প্রধান কানা বেলাল।

এ বাহিনীর রয়েছে ১৯ টি কিরিচ, ২টি অবৈধ অস্ত্র, চুরি ও ধারালো হরেক রকম অস্ত্র ভান্ডার। তাদের বিরুদ্ধে রয়েছে, হত্যা, অপহরণ, খুন, ধর্ষণ, চুরি,ডাকাতি, জবর দখল, সন্ত্রাসী হামলার মামলাসহ ১৮ টি মামলা। ধৃত আসামী কাজলকে রিমান্ডের দাবী জানিয়েছেন এলাকাবাসী। নির্যাতিত এলাকাবাসীর দাবী বেলাল বাহিনীর অন্যতম সন্ত্রাসী কাজলকে পুলিশ রিমান্ড এনে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে করলে অন্ত্র সন্ধান বেরিয়ে আসছে।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মর্জিনা আক্তার সাংবাদিকদের বলেন,মাহবুব হত্যার অন্যতম আসামী কানা বেলালসহ সব আসামীকে অবিলম্বে গ্রেফতা করে আইনের আওতায় নিয়ে আসা হবে। এছাড়া দরগাহবিল এলাকায় শান্তি শৃংখলা বজায় রাখতে পুলিশ কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে অভিযান পরিচালনাকারী এসআই নিজাম উদ্দিন এ প্রতিবেদককে জানান, ধৃত আসামী কাজল দুর্র্ধষ সন্ত্রাসী তাকে ধরতে অনেক কষ্ট হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। প্রয়োজনীয় আদালতের কাছে রিমান্ড চাইব। অস্ত্র উদ্ধারের চেষ্টা চলছে। সন্ত্রাসীদের রেহাই নেই।