ঢাকা, বুধবার, ২৫ মে ২০২২

টেকনাফে রোহিঙ্গা মাদক ব্যবসায়ী নিহত

প্রকাশ: ২০২০-০৩-০২ ১০:৫৬:২০ || আপডেট: ২০২০-০৩-০২ ১০:৫৬:৩৭

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ টেকনাফে বিজিবির সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে নুর আলম (৩০) নামে এক রোহিঙ্গা নিহত হয়েছেন। তিনি মিয়ানামার মংডু এলাকার জাফর আলমের ছেলে। বিজিবির দাবি, নিহত রোহিঙ্গা মাদক ব্যবসায়ী।

বিজিবি সূত্রে জানা যায়, হ্নীলা ইউনিয়নের নোয়াপাড়া নাফ নদী সীমান্ত সংলগ্ন জাদীখাল এলাকা দিয়ে মাদকের একটি বড় চালান আসতে পারে-এমন গোপন সংবাদে গতকাল রোববার রাত সাড়ে ১১টার দিকে বিজিবির একটি চৌকষ দল উক্ত এলাকায় অবস্থান নেয়। এরপর রাতের অন্ধকারে মাদক কারবারে জড়িত ৪/৫ জন লোক একটি নৌকা নিয়ে জাদীখাল পয়েন্টে প্রবেশ করতে দেখে বিজিবি তাদের দাঁড়ানোর সংকেত দেয়।

কিন্তু নৌকায় থাকা মাদক ব্যবসায়ীরা নৌকা থেকে লাফ দিয়ে দৌড়ে পালানো চেষ্টা করলে বিজিবি তাদের ধাওয়া করে। এক পর্যায়ে মাদক কারবারীরা বিজিবি সদস্যদের লক্ষ্য করে এলোপাতাড়ি গুলিবর্ষণ শুরু করে। বিজিবিও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছোড়ে।

উভয়পক্ষের গোলাগুলি থেমে যাওয়ার কিছুক্ষণ পর ঘটনাস্থলে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় অজ্ঞাত এক যুবককে পড়ে থাকতে দেখা যায়। এরপর বিজিবি সদস্যরা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ২ বিজিবি অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল মো. ফয়সল হাসান খাঁন (পিএসসি) বলেন, ঘটনাস্থল থেকে ১ লাখ ৫০ হাজার ইয়াবা, দেশীয় তৈরি ১টি অস্ত্র, ২ রাউন্ড কার্তুজও উদ্ধার করা হয়েছে। যার আনুমানিক মূল্য ৪ কোটি ৫০ লাখ টাকা।

মাদক পাচার প্রতিরোধে বিজিবির চলমান যুদ্ধ অব্যাহত আছে এবং থাকবে বলেও জানান বিজিবির এই কর্মকর্তা।