ঢাকা, শুক্রবার, ১ জুলাই ২০২২

টেকনাফে বন্দুক যুদ্ধে মাদক পাচারকারী নিহত

প্রকাশ: ২০১৮-০৮-২৪ ১৭:৩৮:২২ || আপডেট: ২০১৮-০৮-২৪ ১৭:৩৮:২২

পিস্তল, ইয়াবা, মাইক্রো ও তাজা কার্তূজ জব্দ

টেকনাফে বন্দুক যুদ্ধে মাদক পাচারকারী নিহত

হুমায়ূন রশিদ, টেকনাফ:

টেকনাফে মাদকের চালান পাচারের সময় র‌্যাবের সাথে বন্দুক যুদ্ধে এক মাদক পাচারকারী নিহত হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে বিপূল পরিমাণ ইয়াবা, ব্যবহৃত মাইক্রো, বিদেশী পিস্তল ও তাজা কার্তূজ জব্দ করা হয়েছে। মাদক ব্যবসায়ীর লাশ হাসপাতাল নেওয়া হয়েছে।

জানা যায়, ২৪ আগষ্ট ভোরে টেকনাফ হতে মাদকের চালান পাচারের গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৭, কক্সবাজার ক্যাম্পের একটি দল টেকনাফ পৌর এলাকার কে,কে পাড়া সংলগ্ন পল্লী বিদ্যুৎ অফিসের সামনে প্রধান সড়কে একটি মাইক্রোবাসকে থামানোর সংকেত দেয়। গাড়িতে থাকা মাদক পাচারকারীরা র‌্যাবকে দেখামাত্র গুলিবর্ষণ করে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এতে র‌্যাবের ২ সদস্য আহত হলে র‌্যাব সদস্যরা পাল্টা গুলিবর্ষণ করলে ঘটনাস্থলে এক ব্যক্তি রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে যায়। রক্তাক্ত ব্যক্তিকে দ্রুত হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। নিহত ব্যক্তির পকেটে থাকা পরিচয়পত্রের সুত্রধরে সে ঢাকা সাভারের হেমায়েত পুরের আনিসুর রহমানের পুত্র আজিজুর রহমান আজাদ (৪২)বলে নিশ্চিত করা হয়। পুলিশ খবর পেয়ে হাসপাতাল হতে লাশ উদ্ধার করে পোস্ট মর্টেমের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। এদিকে উপজেলা সদর হাসপাতালে কর্তব্যরত ডাঃ টিটু চন্দ্রশীল র‌্যাবের দুই সদস্য আহত হওয়ার সত্যতা নিশ্চিত করেন। ঘটনাস্থল তল্লাশী করে একটি বিদেশী পিস্তল, ৬৮ হাজার ইয়াবা, মাদক পাচারে ব্যবহৃত মাইক্রো, ৩টি তাজা কার্তূজ ও ৩টি খালি খোসা জব্দ করা হয় বলে র‌্যাব-৭, কক্সবাজার ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার মেজর মেহেদী হাসান সত্যতা নিশ্চিত করেন।