ঢাকা, মঙ্গলবার, ৯ আগস্ট ২০২২

কাঁদলেন শেখ হাসিনা

প্রকাশ: ২০১৮-০৭-২১ ২১:৩১:১৮ || আপডেট: ২০১৮-০৭-২১ ২১:৩১:১৮

কাঁদলেন শেখ হাসিনা

অনলাইন ডেস্ক:

রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আওয়ামী লীগ আয়োজিত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের মঞ্চে বক্তব্য দিচ্ছেন দলের সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেখানে নেতাকর্মীদের উদ্দেশে কথা বলতে বলতে বাবা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও পরিবারের সদস্যদের নির্মম হত্যাকাণ্ডের কথা স্মরণ করে অশ্রুসিক্ত হয়ে ওঠে তার চোখ। কান্না জড়ানো কণ্ঠে শেখ হাসিনা বলেন,  ‘বার বার ক্যু হয়েছে এ দেশে। আমি, আমার ছোট বোন রেহানা ৭৫ সালে ৩০শে জুলাই আমরা জার্মানিতে গিয়েছিলাম, আমার স্বামীর কর্মস্থলে। যেদিন বাংলার মাটি ছেড়ে যাই, সেদিন আমার মা, বাবা, ভাই, বোন সবাই বেঁচে ছিল। সকলের কাছ থেকে বিদায় নিয়ে গিয়েছিলাম। কিন্তু কেন জানি না মানুষ বিদেশে গেলে আনন্দ পায়। কিন্তু সেদিন আনন্দ হয়নি, অঝোর ধারায় কেঁদেছিলাম।’

‘কেন জানি দেশ ছেড়ে যেতে ইচ্ছা হয়নি। একবার বলেওছিলাম যে যাবো না। কিন্তু… জানি না খোদার কী ইচ্ছা ছিল। ৩০শে জুলাই চলে গেলাম, আর ১৫ আগস্ট একটি টেলিফোন… সেদিন মনে হয়েছিল ওই টেলিফোনের আওয়াজটা বড় কর্কশ। সাংঘাতিকভাবে আমার কানে বেজেছিলো।’ টেলিফোনে হত্যাকাণ্ডের খবর শোনার পর নিজের অনুভূতি জানাতে গিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, ‘… আমার মুখ থেকে তখন একটি কথাই বের হয়েছিল, তাহলে তো আমার আর কেউ বেঁচে নেই।’ আজ শনিবার বেলা সাড়ে ৩টার দিকে রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনের পাশের গেট দিয়ে সমাবেশ স্থলে পৌঁছান প্রধানমন্ত্রী।

প্রধানমন্ত্রীর উপস্থিতিতে বিকেলে সমাবেশে বক্তব্য দেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। পরে বিকেল পৌনে ৫টার দিকে বক্তব্য শুরু করেন প্রধানমন্ত্রী। বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের সফল উৎক্ষেপণ এবং উন্নয়নসহ দেশের বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবদানের জন্য প্রধানমন্ত্রীকে এ সংবর্ধনা দেওয়ার আয়োজন করে আওয়ামী লীগ।