ঢাকা, সোমবার, ৪ জুলাই ২০২২

রাঙামাটি পৌরসভা নির্বাচনে প্রার্থীদের প্রতীক বরাদ্ধ

প্রকাশ: ২০১৫-১২-১৪ ১৮:১৭:৪১ || আপডেট: ২০১৫-১২-১৪ ১৮:১৭:৪১

RP.9.w

জুঁই চাকমা,রাঙামাটি :: আগামী ৩০ ডিসেম্বর ২০১৫তারিখে রাঙামাটি পৌরসভা নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। সোমবার ১৪ ডিসেম্বর নির্বাচন কমিশন ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী রাঙামাটি পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামীলীগের আকবর হোসেন চৌধুরীকে দলীয় প্রতীক নৌকা, বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি)’র সাইফুল ইসলাম চৌধুরীকে দলীয় প্রতীক ধানের শিষ,জাতীয় পার্টি (এরশাদ)’র শিবু প্রসাদ মিশ্রকে দলীয় প্রতীক লাঙ্গল, পিসিজেএসএস সমর্থীত স্বতন্ত্র প্রার্থী গঙ্গামানিক চাকমাকে নারিকেল গাছ, স্বতন্ত্র প্রার্থী মোঃ হাবিবুর রহমানকে জগ, স্বতন্ত্র প্রার্থী রবিউল আলম রবিকে কম্পিউটার ও স্বতন্ত্র প্রার্থী অমর কুমার দে কে মোবাইল ফোন প্রতীক বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে।

সংরক্ষিত আসন কাউন্সিলর ১,২,৩ নং ওয়ার্ডে ছালেহা আক্তারকে আঙ্গুর, রুপসী দাশ গুপ্তকে কাঁিচ ও আয়শা বেগমকে ভেনেটি ব্যাগ।

সংরক্ষিত কাউন্সিলর ৪,৫,৬ নং ওয়ার্ডে শ্যামলী ত্রিপুরাকে কাঁচি ও সোমা বেগম পূর্ণিমাকে পুতুল এবং সংরক্ষিত কাউন্সিলর ৭,৮,৯ নং ওয়ার্ডে মোহতি দেওয়ানকে হারমনি ও জুবাইতুন নাহারকে আঙ্গুর প্রতীক বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে।

সাধারন আসন কাউন্সিলর ১ নং ওয়ার্ডে মোঃ রমজান আলীকে টেবিল ল্যাম্প, মোঃ নাসির উদ্দিনকে ব্রীজ ও মোঃ হেলাল উদ্দিনকে উটপাখি।

২ নং ওয়ার্ডে এস, এম হামিদকে গাজর, মোঃ করিম আকবরকে টেবিল ল্যাম্প, আব্দুল মালেককে উটপাখি, সঞ্চয় ঘোষ রায়কে ডালিম ও মোঃ ইউসুফ চৌধুরীকে পাঞ্জাবী।

৩ নং ওয়ার্ডে বিমল বড়–য়াকে টেবিল ল্যাম্প, সন্তোষ ধরকে ব্রীজ, শাহাদাত হোসেনকে পাঞ্জাবী, নেয়াজ উদ্দিনকে উটপাখি, সোহেল চাকমাকে ডালিম ও পুলক দে কে ব্ল্যাক বোর্ড।

৪ নং ওয়ার্ডে নুর মোঃ মজুমদারকে উটপাখি, মোঃ মিজানুর রহমান বাবুকে টেবিল ল্যাম্প, মোঃ বেলাল হোসেনকে ব্রীজ, মোঃ আবু জাফর লিটনকে ব্ল্যাক বোর্ড, মোঃ নুরুনবীকে ডালিম ও আব্দুল করিমকে পাঞ্জাবী।

৫ নং ওয়ার্ডে মোঃ আমীর হামজাকে ব্রীজ, অজিত দাশকে পাঞ্জাবী, মোঃ আসাদুল হককে উটপাখি, বাচিং মারমাকে পানির বোতল ও শংকর মুৎসুদ্দিকে টেবিল ল্যাম্প।

৬ নং ওয়ার্ডে মোঃ ইব্রাহিমকে উটপাখি, রবি মোহন চাকমাকে ঢেরশ, মোঃ জালাল সিকদারকে পাঞ্জাবী ও নুর হোসেনকে ব্ল্যাক বোর্ড।

৭ নং ওয়ার্ডে মোঃ মন্সুরুল হককে উটপাখি, দেবানন চাকমাকে পানির বোতল, মনছুর আহম্মেদকে পাঞ্জাবী, মোঃ নাছির হোসেনকে ডালিম ও মোঃ জামাল উদ্দিনকে গাজর।

৮ নং ওয়ার্ডে বিমল বিশ্বাসকে ডালিম ও কালায়ন চাকমাকে উটপাখি।

৯ নং ওয়ার্ডে সন্তোষ কুমার চাকমাকে উটপাখি, মোঃ বিল্লাল হোসেনকে পাঞ্জাবী ও শেখ মোঃ মতিউর রহমানকে ডালিম প্রতীক বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে। একই প্রতীক একাধীক প্রার্থী চাইলে বেশ কিছু প্রার্থীদের ভিতর লটারীর মাধ্যমে প্রতীক বরাদ্ধ দেয়া হয়।

সোমবার সকাল ১০ টায় রাঙামাটি জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে সকল মেয়র, সংরক্ষিত আসনের প্রার্থী ও সাধারন কাউন্সিলর প্রার্থীদের উপস্থিতিতে রাঙামাটি পৌরসভা নির্বাচন এর রিটার্নিং অফিসার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোস্তফা জামান প্রতীক বরাদ্ধ দেন। এসময় রাঙামাটি জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা এবং রাঙামাটি পৌরসভা নির্বাচন এর সহকারী রিটার্নিং অফিসার ও রাঙামাটি সদর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা এস এম শাহাদাত হোসেন উপস্থিত ছিলেন।

রাঙামাটি জেলা আওয়ামীলীগের একটি সূত্র জানায় গতকাল রবিবার দলীয় শৃংখলা ভঙ্গের কারণে এবং আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সিদ্ধান্ত অমান্য করে মেয়র প্রার্থী হওয়াতে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মোঃ হাবিবুর রহমান ও আরেকজন স্বতন্ত্র প্রার্থী অমর কুমার দে কে তাদের রাঙামাটি জেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সদস্য পদসহ আওয়ামীলীগের সকল পদ থেকে বহিস্কার করা হয়েছে।

এদিকে রাঙামাটি জেলা বিএনপির সিদ্ধান্তকে আমলে না নিয়ে রবিউল আলম রবি স্বতন্ত্র প্রার্থী হওয়ায় সাধারন সদস্য পদসহ রাঙামাটি জেলা শ্রমিক দলের সহ সভাপতি ও জেলা বিএনপির গ্রাম সরকার বিষয়ক সম্পাদক পদ থেকে বহিস্কার করা হয়েছে।

পিসিজেএসএস এর সমর্থীত মেয়র প্রার্থী গঙ্গামানিক চাকমা প্রতিবেদককে তার জয়ের ব্যাপারে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। তিনি বলেন, আমি সব সময় গণতন্ত্রের বিশ্বাসী । স্থানীয় প্রশাসন ও নির্বাচন কমিশন নিরপেক্ষভাবে নির্বাচন পরিচালনা দাযিত্ব পালন করবেন বলে তিনি প্রত্যাশা করেন। তিনি আরো বলেন স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসাবে আমাকে জনগন নির্বাচিত করে জন প্রতিনিধি হিসাবে পৌরসভায় দায়িত্ব পালনের সুযোগ দেওয়ার সম্ভাবনা আগের চেয়ে অনেক বেশী।

রাঙামাটি পৌরসভা নির্বাচন এর রিটার্নিং অফিসার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোস্তফা জামান সকল মেয়র প্রার্থী, সংরক্ষিত আসনের প্রার্থী ও সাধারন কাউন্সিলর প্রার্থীদের নির্বাচন কমিশনের আচরণ বিধি মেনে তাদের নির্বাচনী প্রচার কার্যক্রম পরিচালনা করতে নির্দেশ দেন । কোন প্রার্থী যেন রাত ৮টার পর মাইকিং প্রচারনা না করেন সে দিকে দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।